পরীক্ষামূলক প্রকাশনা - সাইট নির্মাণাধীন

Home > বাংলাদেশ > সরকার > ‘মেজর (অব.) জিয়াউদ্দিনকে উপযুক্ত সম্মান দিতে হবে’

‘মেজর (অব.) জিয়াউদ্দিনকে উপযুক্ত সম্মান দিতে হবে’

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাংলাদেশের প্রথম সেনা প্রধান ও সেক্টর কমান্ডার্স ফোরাম-মুক্তিযুদ্ধ’৭১ এর সভাপতি মেজর জেনারেল (অব.) কে এম শফিউল্লাহ বলেছেন, মেজর (অব.) জিয়াউদ্দিন আহমেদ এককভাবে সুন্দরবনে পাকিস্তানীদের সঙ্গে যুদ্ধ করেছেন। কিন্তু তার কোনো খেতাব নেই। এটা হতে পারে না। তাকে উপযুক্ত সম্মান দিতে হবে।

বুধবার জাতীয় প্রেসক্লাবের কনফারেন্স লাউঞ্জে আয়োজিত মেজর (অব.) জিয়াউদ্দিনের স্মরণ সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। সেক্টর কমান্ডার্স ফোরাম-মুক্তিয়ুদ্ধ’৭১ এই স্মরণ সভার আয়োজন করে।

কে এম শফিউল্লাহ বলেন, ‘মেজর (অব.) জিয়াউদ্দিন একজন মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে উপযুক্ত সম্মান এবং সেনা কর্মকর্তা হিসেবে সেনাবাহিনীর সুযোগ কেন পাবেন না? পাকিস্তান মিলিটারি একাডেমি থেকে কমিশন পাওয়ার পর সরাসরি সুন্দরবন এলাকায় মুক্তিযুদ্ধে অংশ নেওয়ার কারণেই হয়তো সেনাবাহিনীতে মেজর (অব.) জিয়াউদ্দিন আহমেদের কোনো নম্বর ও অন্যান্য কাগজপত্র নেই। সেনাবাহিনীর একজন কর্মকর্তা হিসেবে সেনাবাহিনীতে তার পাওনাও পরিশোধ করা দরকার।’

স্মরণ সভায় আরও বক্তব্য রাখেন, সেক্টর কমান্ডার্স ফোরাম-মুক্তিযুদ্ধ’৭১ এর সহ সভাপতি লে. কর্নেল (অব.) আবু ওসমান চৌধুরী, সহ সভাপতি নুরুল আলম, মহাসচিব হারুন হাবিব, যুগ্ম মহাসচিব প্রফেসর আবুল কালাম আজাদ পাটওয়ারী ও সাংগঠনিক সম্পাদক মেজর (অব.) মো. আলী সিকদার। সঞ্চালনা করেন সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মো. মোশারফ হোসেন।

লে. কর্নেল (অব.) আবু ওসমান চৌধুরী বলেন, ‘আমরা কিছু পাওয়ার জন্য যুদ্ধ করিনি। তবে মুক্তিযোদ্ধাদের উপযুক্ত সম্মান দেওয়া জাতির দায়িত্ব। মুক্তিযুদ্ধের সাব সেক্টর কমান্ডারদের কোনো সঠিক পরিসংখ্যান ও তালিকা নেই্ তাদের সম্পর্কে পরিস্কার ধারণা থাকা দরকার। এজন্য তাদের নিয়ে একটি পুস্তিকা করতে হবে।’

নুরুল আলম বলেন, ‘আজ ঘাট অঘাট হয়েছে। তাই যার যা সম্মান তা দেওয়া হচ্ছে না। মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃত করা হয়েছে। এই বিকৃতি দূর করতে হবে।’

হারুন হাবিব বলেন, ‘মেজর (অব.) জিয়াউদ্দিনকে তার উপযুক্ত সম্মান দিতে হবে।’

প্রফেসর আবুল কালাম আজাদ পাটওয়ারী বলেন, ‘মেজর (অব.) জিয়াউদ্দিনকে স্বাধীনতা পদক দিতে হবে। দেশে যে দিনগুলো যাচ্ছে তা ভাল মনে হচ্ছে না।’

মেজর (অব.) মো. আলী সিকদার বলেন, ‘অবসরে যাওয়া সেনা কর্মকর্তাদের প্রতিষ্ঠান রাওয়া ক্লাবের ডাইরেক্টরিতে সব সেনা কর্মকর্তার নাম থাকলেও মেজর (অব.) জিয়াউদ্দিনের কোনা নাম ও তথ্য নেই। এ বিষয়ে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে সেনাবাহিনীতে তার কোন কাগজপত্র না থাকায় নাকি ডাইরেক্টরিতেও নাম ও তথ্য নেই। বিষয়টি গুরুত্বের সঙ্গে খাতিয়ে দেখতে হবে।’

x

Check Also

‘পাস্তুরিত দুধ নিয়ে কারসাজি আছে কি না দেখা উচিত’

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক : পাস্তুরিত দুধের মান নিয়ে প্রশ্ন তুলে নেতিবাচক ধারণা সৃষ্টির ক্ষেত্রে দেশের দুধ আমদানিকারকদের কোনো কারসাজি আছে কি না, তা খতিয়ে দেখার নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউতে আওয়ামী ...

নতুন মন্ত্রিসভার প্রথম বৈঠক ২১ জানুয়ারি

সচিবালয় প্রতিবেদক : নতুন মন্ত্রিসভার প্রথম বৈঠক আগামী সোমবার (২১ জানুয়ারি) অনুষ্ঠিত হবে। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব (মন্ত্রিসভা ও রিপোর্ট অনুবিভাগ) মো. রেজাউল আহসান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। জানা গেছে, নতুন সরকারের প্রথম মন্ত্রিসভা বৈঠকটি ...

‘বাংলাদেশের উন্নয়ন কেউ থামাতে পারবে না’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বাংলাদেশ উন্নয়নের মহাসড়কে যাত্রা শুরু করেছে এবং এই উন্নয়ন ও অগ্রযাত্রা কেউ থামাতে পারবে না। বুধবার বিকেলে রিয়াদস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসের নিজস্ব জায়গায় এবং নিজস্ব অর্থে নবনির্মিত চ্যান্সেরি ভবন উদ্বোধন উপলক্ষে প্রদত্ত ...

শিরোনামঃ