পরীক্ষামূলক প্রকাশনা - সাইট নির্মাণাধীন

Home > বাংলাদেশ > আইন ও বিচার > ২ কোটি টাকার বেশি থাকলে দিতে হবে সারচার্জ

২ কোটি টাকার বেশি থাকলে দিতে হবে সারচার্জ

নিজস্ব প্রতিবেদক : দুই কোটি টাকার অধিক সম্পদশালীদের কাছ থেকে আরোপিত করের ওপর ১০ শতাংশ হারে সারচার্জ নেওয়ার সিদ্ধান্ত বৈধ বলে হাইকোর্টের রায় স্থগিত করেননি আপিল বিভাগ।

এই আদেশের ফলে সম্পদশালীদের নিকট থেকে সারচার্জ বা অতিরিক্ত কর নেওয়া বন্ধ থাকবে না বলে জানিয়েছেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল সরদার রাশেদ জাহাঙ্গীর।

বৃহস্পতিবার হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে ব্যবসায়ীদের করা লিভ টু আপিলের অনুমতি দিয়ে ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহহাব মিঞার নেতৃত্বাধানী পাঁচ বিচারপতির আপিল বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল সরদার রাশেদ জাহাঙ্গীর।

এর আগে ২০১৬ সালের ১২ জানুয়ারি হাইকোর্টের একটি বেঞ্চ সম্পদশালীদের কাছ থেকে সারচার্জ নেওয়া সাংবিধানিক বলে রায় দেন।

মামলার বিবরণে জানা যায়, ২০১১-১২ অর্থবছরে সম্পদের ওপর প্রথম সারচার্জ আরোপ করে এনবিআর। দুই কোটি টাকার বেশি সম্পদশালীদের নিকট থেকে ১০ শতাংশ হারে করারোপ করা হয়।

এনবিআর সূত্রে জানা গেছে, ওই অর্থবছরে মাত্র ৪ হাজার ৪৪৬ জন করদাতা দুই কোটি টাকার বেশি সম্পদ দেখিয়েছিলেন। ওই বছরে ১০ শতাংশ হারে করারোপ করে এনবিআর পায় ৪৪ কোটি ৬২ লাখ টাকা।

২০১৫-১৬ অর্থবছর থেকে সম্পদের ওপর সারচার্জ আরোপের হার চারটি স্তরে পুনর্বিন্যাস করা হয়। ২ থেকে ১০ কোটি টাকা পর্যন্ত সম্পদধারীরা আয়করের ১০ শতাংশ, ১১ থেকে ২০ কোটি টাকা পর্যন্ত ১৫ শতাংশ, ২১ থেকে ৩০ কোটি টাকা পর্যন্ত ২০ শতাংশ এবং ৩১ কোটি টাকার ওপরে বেশি সম্পদধারীদের আয়করের ২৫ শতাংশ সারচার্জ দিতে হবে বলে সিদ্ধান্ত নেয় সরকার।

এই সিদ্ধান্তের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট করেন ব্যবসায়ীরা। রিটের শুনানি নিয়ে দুই কোটি টাকার অধিক সম্পদশালীদের কাছ থেকে আরোপিত করের ওপর সারচার্জ নেওয়া বৈধ বলে রায় দেন হাইকোর্ট। ওই রায়ের বিরুদ্ধে আপিল বিভাগে আবেদন করেন ব্যবসায়ীরা।

আজ হাইকোর্টের রায়ের বিরুদ্ধে ব্যবসায়ীদের করা লিভ টু আপিল গ্রহণ করে উপরি উক্ত আদেশ দেন আপিল বিভাগ।

x

Check Also

‘এ রায় সমাজে ভদ্রবেশী সাহেদের মতো অপরাধীদের জন্য বার্তা’

আমাদের সমাজে সাহেদের মতো অনেক ভদ্রবেশী অপরাধীর জন্য এ রায় বার্তা হিসেবে কাজ করবে। সাহেদের অস্ত্র মামলায় রায় ঘোষণার আগে দেওয়া পর্যবেক্ষণে একথা বলেছেন বিচারক। সোমবার (২৮ সেপ্টেম্বর) ঢাকার এক নম্বর স্পেশাল ট্রাইব্যুনালের বিচারক কেএম ...

‘অনেকের কাছে গেছি বিচারের জন্য, কেউ সহযোগিতা করেনি’

সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের নেতাদের বিরুদ্ধে ধর্ষণের মামলা করা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সেই ছাত্রী অভিযোগ করেছেন, মামলার আগে তিনি অনেকের কাছে বিচার চেয়েছেন, কিন্তু কেউ তাকে সাহায‌্য করেনি। শুক্রবার (২৫ সেপ্টেম্বর) বিকেলে জাতীয় প্রেসক্লাবে গণমাধ্যমকর্মীদের ...

গণপিটুনিতে রেনু হত্যা: ১৫ জনের বিরুদ্ধে চার্জশিট

রাজধানীর বাড্ডায় ছেলে ধরা সন্দেহে গণপিটুনিতে তাসলিমা বেগম রেনু হত্যা মামলায় ১৫ জনের বিরুদ্ধে চার্জশিট দিয়েছে ডিবি পুলিশ। বৃহস্পতিবার (১০ সেপ্টেম্বর) মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের ইন্সপেক্টর আব্দুল হক চার্জশিট দাখিল করেন। চার্জশিটভুক্ত আসামিরা হলেন- ...

শিরোনামঃ