পরীক্ষামূলক প্রকাশনা - সাইট নির্মাণাধীন

Home > বাংলাদেশ > দেশে জঙ্গিবাদের স্থান নেই : প্রধানমন্ত্রী

দেশে জঙ্গিবাদের স্থান নেই : প্রধানমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী :
বাংলাদেশে জঙ্গিবাদের স্থান নেই বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

তিনি বলেছেন, ‘বাংলাদেশে জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসের স্থান নেই। আগুন সন্ত্রাসের মাধ্যমে জামায়াত-বিএনপি রাজশাহী অঞ্চলে আওয়ামী লীগ ও এর অঙ্গ সংগঠনের মানুষকে খুন করেছে। সাধারণ মানুষ তাদের প্রতিরোধ করেছে। সাধারণ মানুষের প্রতি আওয়ামী লীগের সমর্থন অব্যাহত আছে।’

বৃহস্পতিবার বিকেলে রাজশাহীতে আওয়ামী লীগের এক জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী এ সব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি-জামায়াতের সন্ত্রাস কঠোর হস্তে দমন করা হবে।’ তিনি বলেন, ‘আমরা সারা দেশের উন্নয়নের জন্য ব্যাপকভাবে কাজ করে যাচ্ছি। সার্বিক উন্নয়নে কারও দাবি করার প্রয়োজন নেই। আমি জাতির পিতার মেয়ে, আমি জানি দেশের উন্নয়ন কীভাবে করতে হয়।’

শেখ হাসিনা বলেন, তার লক্ষ্য- দেশে শান্তি, নিরাপত্তা নিশ্চিত করা। জাতির পিতার ক্ষুধামুক্ত, দারিদ্রমুক্ত দেশ গড়ার স্বপ্ন পূরণে তিনি কাজ করে যাচ্ছেন। তাই উত্তরবঙ্গে এখন মঙ্গা নেই। রাজশাহীর উন্নয়নে যা যা করা দরকার, তার সবই করবে সরকার।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশে ১১০টি বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল করে দিচ্ছে তার সরকার। রাজশাহীতেও এ বিশেষ অর্থনৈতিক জোন স্থাপন হবে। ইতিমধ্যে সরকার এখানে আইটি পার্ক নির্মাণের কাজ শুরু করেছে। সেখানে কম্পিউটার, ল্যাপটসহ নানা ইলেকট্রনিক পণ্য উৎপাদন হবে। এ অঞ্চলের কৃষি নিয়ে আরো বেশি গবেষণা করতে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়েরও সক্ষমতা বৃদ্ধি করা হবে।

প্রধানমন্ত্রী তার ৩০ মিনিটের ভাষণে সরকারের নানা উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডের কথা তুলে ধরেন। ২০০৮ সালে মহাজোট সরকার ক্ষমতায় আসার পর দুই মেয়াদে রাজশাহীর কী কী উন্নয়ন হয়েছে, তাও তুলে ধরেন প্রধানমন্ত্রী। এ সময় তিনি আগামীতেও নৌকা প্রতীকে ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে ক্ষমতায় আনার আহ্বান জানান।

তিনি বলেন, দেশের উন্নয়ন চাইলে আওয়ামী লীগের প্রার্থীকে ভোট দিয়ে বিজয়ী করতে হবে। এবারের বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের ঘর তৈরি করে দেবে তার সরকার। ক্ষতিগ্রস্ত সড়কগুলোও দ্রুত মেরামত করা হবে। কেউ যেন জঙ্গিবাদে জড়িয়ে পড়তে না পারে, সে জন্য অভিভাবক, শিক্ষক ও মসজিদের ইমামদের সতর্ক থাকার আহ্বান জানান তিনি।

পবা উপজেলার হরিয়ানে রাজশাহী চিনিকল মাঠে এ জনসভার আয়োজন করা হয়। জনসভায় আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ওমর ফারুক চৌধুরী এমপি এবং আয়েন উদ্দিন এমপি বক্তব্য দেন।

পবা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা ইয়াসিন আলীর সভাপতিত্বে জনসভায় আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, বিএম মোজাম্মেল হক, রাজশাহী সদর আসনের সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশাসহ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতারা, রাজশাহী বিভাগের বিভিন্ন আসনের এমপি এবং আওয়ামী লীগের বিভিন্ন জেলার শীর্ষ নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

জনসভায় বক্তব্য রাখার আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রাজশাহীর ১৭টি উন্নয়ন প্রকল্পের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন ও ছয়টি প্রকল্পের উদ্বোধন করেন। এর আগে সকালে তিনি জেলার চারঘাট উপজেলার সারদায় বাংলাদেশ পুলিশ অ্যাকাডেমির একটি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেন।

পরে বিকেলে বক্তব্য দেন জনসভায়। প্রধানমন্ত্রীর জনসভা উপলক্ষে দুপুরের আগেই নেতা-কর্মীদের উপস্থিতিতে কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায় চিনিকলের মাঠ। তুমুল বৃষ্টি উপেক্ষা করে দুপুর থেকেই প্রধানমন্ত্রীর জন্য অপেক্ষা করেন দূর-দূরান্ত থেকে আগত নেতা-কর্মীরা।

x

Check Also

সুস্থ হয়ে বাসায় ফিরলেন ব্যারিস্টার রফিক-উল হক

সুস্থ হয়ে হাসপাতাল থেকে বাসায় ফিরলেন সুপ্রিম কোর্টের প্রবীণ আইনজীবী ব্যারিস্টার রফিক-উল হক। শনিবার (১৭ অক্টোবর) সকালে রাজধানীর মগবাজারের আদ্-দ্বীন হাসপাতাল থেকে তাকে বাসায় নেওয়া হয়। হাসপাতালের জনসংযোগ কর্মকর্তা তরিকুল ইসলাম আকাশ রাইজিংবিডিকে জানান, প্রবীণ ...

ভোট সুষ্ঠু হচ্ছে: মনু

ভোট দেওয়া শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন কাজী মনিরুল ইসলাম মনু ঢাকা-৫ আসনের উপনির্বাচনের ভোট সুষ্ঠু হচ্ছে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী মো. কাজী মনিরুল ইসলাম মনু। শনিবার (১৭ অক্টোবর) সকাল ১০টায় ঢাকা আইডিয়াল ...

‘সৌদি রি-এন্ট্রি ভিসার মেয়াদ ৩০ অক্টোবর পর্যন্ত বাড়ছে’

ঢাকায় সৌদি দূতাবাস ছুটিতে থাকা প্রবাসী কর্মীদের এক্সিট রি-এন্ট্রি ভিসার মেয়াদ আগামী ৩০ অক্টোবর পর্যন্ত বাড়ছে বলে জানিয়েছেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ। এজন্য তাদেরকে ৬ হাজার ৫০০ টাকা করে দিতে হবে। ...

শিরোনামঃ