পরীক্ষামূলক প্রকাশনা - সাইট নির্মাণাধীন

Home > বাংলাদেশ > রাজনীতি > ‘জোটের রাজনীতি স্তিমিত করতে আমিনুরকে গুম’

‘জোটের রাজনীতি স্তিমিত করতে আমিনুরকে গুম’

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক : বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের রাজনীতি স্তিমিত করতেই জোট নেতা আমিনুর রহমানকে ‘গুম করা হয়েছে’ বলে অভিযোগ করেছেন জোটের মুখপাত্র ও বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

শনিবার দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘২০ দলীয় জোট ভাঙার চেষ্টা হচ্ছে। অতীতেও হয়েছে, কিন্তু পারেনি। জোট অটুট আছে। বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির মহাসচিব এম এম আমিনুর রহমানকে গুম করার উদ্দেশ্যেই হচ্ছে ভয় দেখানো এবং জোটের রাজনীতিকে স্থিমিত করে দেওয়া।’

এ সময় এম এম আমিনুর রহমানসহ সকল নিখোঁজ রাজনৈতিক নেতা-কর্মীদের তাদের পরিবারের কাছে ফেরত দিতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর প্রতি আহ্বান জানান মির্জা ফখরুল।

রাজধানীর গুলশানে বিএনপি নেত্রীর রাজনৈতিক কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করা হয়। এ সময় জোটের শীর্ষ নেতারা তার পাশে ছিলেন।

গত ২৭ আগস্ট রাতে ঢাকা থেকে সাভার যাওয়ার পথে নিখোঁজ হন কল্যাণ পার্টির মহাসচিব এম এম আমিনুর রহমান। এরপর তার পরিবার ও রাজনৈতিক সহকর্মীরা খোঁজ করেও তার সন্ধান পাননি। এ কারণে তার পরিবার ৩০ আগস্ট পল্টন থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘রাষ্ট্র যদি জনগণের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা ও প্রতারণা করে সঠিক তথ্য না দেয়, সেক্ষেত্রে সবচেয়ে বড় সন্ত্রাসী তো রাষ্ট্রই। অথচ সরকার এবং আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর দায়িত্ব হচ্ছে যদি কেউ গুম হয়ে যায় তাকে খুঁজে বের করা।’

আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর থেকে গুম শুরু হয়েছে মন্তব্য করেন তিনি বলেন, ‘দুর্ভাগ্যজনকভাবে এখন তা সারা দেশে ছড়িয়ে পড়েছে। দেশে কোনো মানুষের নিরাপত্তা নেই। বর্তমান সরকারের আমলে চৌধুরী আলম, ইলিয়াস আলী থেকে শুরু করে বিএনপি, যুবদল, ছাত্রদলের ৩০০ এর কাছাকাছি নেতা-কর্মী গুম হয়েছে।’

গুম হচ্ছে মানবতাবিরোধী জঘন্য অপরাধ হিসেবে অভিহিত করে এর পরিণতি করুণ হয় বলেও মন্তব্য করেন ২০ দলীয় জোটের এই সমন্বয়ক।

আমিনুর রহমান নিখোঁজ হওয়া প্রসঙ্গ ছাড়াও রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে কথা বলেন মির্জা ফখরুল।

তিনি বলেন, ‘রোহিঙ্গা ইস্যুটি ভয়াবহ অবস্থা তৈরি হয়েছে। সরকার তা মোকাবিলা করতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছে। যেকোনো সভ্য সরকার হলে দেশের সকল রাজনৈতিক দলের সঙ্গে সভা ডাকতো।’

‘আমরা বারবার আহ্বান জানিয়েছি রোহিঙ্গা ইস্যু মোকাবিলা করতে জাতীয় ঐক্য তৈরি করা হউক। কিন্তু সরকার তা না করে রোহিঙ্গাদের বিএনপির পক্ষ থেকে ত্রাণ দিতেও বাধা দিচ্ছে’, বলেন তিনি।

কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম বলেন, ‘গত ২৭ আগস্ট নয়া পল্টনের দলীয় কার্যালয় থেকে সাভারে নিজ বাসার উদ্দেশ্যে রওনা হয়ে এখনও বাসায় পৌঁছানানি এম এম আমিনুর রহমান। তাকে দল ও পরিবারের কাছে ফিরিয়ে দেওয়ার আহ্বান জানাচ্ছি।’

সংবাদ সম্মেলনে ২০ দলীয় জোট নেতাদের মধ্যে খন্দকার গোলাম মোর্ত্তুজা, ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, অধ্যাপক রেহেনা প্রধান, মোস্তফা জামাল হায়দার, রেদোয়ান আহমেদ, খন্দকার লুৎফর রহমান, গোলাম মোস্তফা ভূইয়া, মজিবুর রহমান পেশোয়ারি, সাইফুদ্দিন মনি, সাঈদ আহমেদ, মহিদ্দিন একরাম, এমএম রাকিব, সৈয়দ মাহবুব হোসেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

x

Check Also

ধর্ষণের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ অবস্থান চান রওশন

ধর্ষণের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রের সর্বোচ্চ অবস্থান দরকার বলে মনে করেন বিরোধী দলীয় নেতা রওশন এরশাদ। বুধবার (০৭ অক্টোবর) এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, দেশজুড়ে একের পর এক ধর্ষণ ও নির্যাতনের ঘটনা ঘটছে। সেই সঙ্গে নির্যাতনের ভিডিও সামাজিক ...

যুবলীগকে মাঠে থাকার নির্দেশ

ঢাকা-৫ আসনের উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীর বিজয় নিশ্চিত করতে যুবলীগকে মাঠে থাকার নির্দেশ দিয়েছেন সংগঠনটির চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ। রোববার (৪ অক্টোবর) বিকেলে রাজধানীর যাত্রাবাড়ীর নুর কমিউনিটি সেন্টারে যুবলীগ আয়োজিত জরুরি নির্বাচনী সভায় ...

‘আন্দোলনের নামে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড মেনে নেওয়া হবে না’

আন্দোলনের নামে কোনো ধরনের সন্ত্রাস সৃষ্টি, জণভোগান্তি এবং জণমালের ক্ষতি সরকার মেনে নেবে না বলে বিএন‌পিকে সতর্ক করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। রোববার (০৪ অক্টোবর) রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে ত্রাণ ...

শিরোনামঃ