পরীক্ষামূলক প্রকাশনা - সাইট নির্মাণাধীন

Home > বিনোদন > চলচ্চিত্রে আগ্রহী স্নিগ্ধা শ্রাবণ

চলচ্চিত্রে আগ্রহী স্নিগ্ধা শ্রাবণ

দেশিয় চলচ্চিত্রে আগের চেয়ে অনেক পরিবর্তন এসেছে। ফলে তরুণীদের অনেকের মতোই বড়পর্দায় কাজ করতে আগ্রহী স্নিগ্ধা শ্রাবণ। এই অভিনেত্রী চলচ্চিত্রে কাজের আগে মঞ্চ ও টিভি নাটকে কাজ করে নিজের অভিনয় দক্ষতা বাড়িয়ে নিয়েছেন। ফলে চলচ্চিত্রে অভিনয় করাটা তার জন্য সহজ হবে। স্নিগ্ধা বলেন, ‘আমি ভালো কিছু চলচ্চিত্রে কাজ করতে চাই। কারণ এটি অভিনয়ের অনেক বড় মাধ্যম। নাটক সময়ের বিবর্তনে মুছে যায়, কিন্তু একটি চলচ্চিত্র থেকে যায় যুগের পর যুগ।’ চলতি সময়ে টিভি নাটকে যারা কাজ করছেন, তাদের মধ্যে মঞ্চের অভিজ্ঞতা অনেকেরই নেই। কিন্তু এ ক্ষেত্রে স্নিগ্ধা ব্যতিক্রম। মঞ্চে নিজের অভিনয়ের ভীত শক্ত করেই টিভি নাটকে কাজ শুরু করেছেন এই উদীয়মান তারকা। এরইমধ্যে স্নিগ্ধা সৈয়দ শাকিলের নির্দেশনায় নতুন ধারাবাহিক নাটক ‘সোনার শেকল’-এর কাজ শুরু করেছেন। এতে তিনি ‘মলি’ নামের একটি চ্যালেঞ্জিং চরিত্রে অভিনয় করছেন। স্নিগ্ধা বলেন, “এর আগে শাকিল ভাইয়ের ‘শান্তি অধিদপ্তর’ নাটকে কাজ করেছি। কাজটি করে নতুন অভিনেত্রী হিসেবে বেশ সাড়া পেয়েছি। নতুন ধারাবাহিকটির চরিত্র নিয়ে আমি বেশ সন্তুষ্ট। আশা করি এই ধারাবাহিকটি প্রচারে এলেও দর্শকের ভালো লাগবে।’ ২০১২ সালের শেষপ্রান্তে ‘দৃষ্টিপাত নাট্যসংসদ’-এর সাথে নিজেকে সম্পৃক্ত করেন স্নিগ্ধা শ্রাবণ। এই দলের হয়ে ‘নাগর আলীর কিচ্ছা’ ও ‘কয়লা রঙ্গের চাদর’ নাটক দুটিতে অভিনয় করে প্রশংসিত হয়েছেন তিনি। ‘নাগর আলী কিচ্ছা’র চারটি নারী চরিত্রেই ধাপে ধাপে তিনি অভিনয় করেছেন এবং ‘কয়লা রঙ্গের চাদর’ নাটকে অভিনয় করেন সাথী চরিত্রে। দুটি নাটকই রচনা ও নির্দেশনা দেন ম আ সালাম। এর বাইরে স্নিগ্ধা শ্রাবণ পথনাটক ‘জোড়াতালি’তেও অভিনয় করেন। এটি রচনা করেছেন ম আ সালাম এবং নিদের্শনা দেন কাজী আনিস। এই নাটকে একজন ‘বীরাঙ্গনা’র চরিত্রে স্নিগ্ধার অভিনয় সবসময়ই প্রশংসিত হয়ে আসছে। মঞ্চ নাটকে অভিনয়ের সুবাদেই স্নিগ্ধা শ্রাবণ কাজ করার সুযোগ পান জুয়েল মাহমুদের নির্দেশনায় ধারাবাহিক নাটক ‘আকাশ মেঘে ঢাকা’ এবং ‘বধূ কেন মন বোঝেনা’তে। পরিচালকের ভাষ্যমতে, এই দুটি নাটকেই স্নিদ্ধা খুব গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন। এরপর তিনি এস এ হক অলিকের ‘সোনার সুতো’, ‘লেডিস ফার্স্ট’ এবং শাহাদাৎ হোসেন সুজনের ‘শোধ’ ধারাবাহিকে কাজ করেন। মাঝে এইচ এস সি পরীক্ষা নিয়ে ব্যস্ত থাকায় অভিনয় থেকে দূরে ছিলেন স্নিগ্ধা। এই মুহুর্তে আরো দুটি ধারাবাহিকে কাজ করছেন তিনি। নাটক দুটি হচ্ছে- সকাল আহমেদের ‘বাবুই পাখির বাসা’ এবং অরণ্য আনোয়ারের ‘দহন’।

x

Check Also

হিরো আলমকে দেখতে ভিড়, সিনেমা হলে দর্শক নেই

মহামারি করোনার কারণে দীর্ঘ সাত মাস পর শর্ত সাপেক্ষে গতকাল (১৬ অক্টোবর) দেশের সিনেমা হলগুলো খুলে দেওয়া হয়েছে। ৪০টি হলে প্রদর্শিত হচ্ছে ‘সাহসী হিরো আলম’। যদিও অধিকাংশ হলে দর্শক উপস্থিতি কম লক্ষ্য করা গেছে। কিন্তু ...

নজর কেড়েছে জোড়াতালির ‘গেন্দা ফুল’ (ভিডিও)

একদিকে বলিউড অভিনেত্রী জ্যাকলিন ফার্নান্দেজের আবেদনময়ী উপস্থিতি। অন্যদিকে কোমরে প্রজাপতি ট্যাটু নিয়েও লাল পাড়, সাদা শাড়িতে বাঙালি নারী দেবলীনা। বাদশার উপস্থিতি যেমন রয়েছে, তেমনি পণ্ডিত বিক্রম ঘোষের তবলা মিক্স ও রতন কাহারের নাচ কারো দৃষ্টি ...

মায়ের ইচ্ছা পূরণ করতে চান অপু

ঢাকাই চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস। কিছুদিন আগে মা শেফালি বিশ্বাসকে হারিয়েছেন তিনি। সেই শোক এখনো কাটিয়ে উঠতে পারেননি এই অভিনেত্রী। কিন্তু সময় থেমে থাকে না। বছর ঘুরে ফিরে এসেছে অপুর জন্মদিন। বিশেষ এ দিনে ...

শিরোনামঃ